সোমবার, ২১ মে ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

বুধবার, ১৪ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮, ০৭:২০:০৯

জয়নুল আবেদীনের দেয়া তিনটি এসি নিয়ে বরিশাল বারে আ'লীগ-বিএনপির বিরোধ চরমে

জয়নুল আবেদীনের দেয়া তিনটি এসি নিয়ে বরিশাল বারে আ'লীগ-বিএনপির বিরোধ চরমে

বরিশাল : সুপ্রিম কোর্ট বার সমিতির সভাপতি এডভোকেট জয়নুল আবেদীনের দেয়া এসি নিয়ে বরিশাল আইনজীবী সমিতির সভাপতি সম্পাদকের মধ্যে মতানৈক্য দেখাদিয়েছে। সভাপতি সম্পাদক দুইজন দুই দলের হওয়ায় অনুষ্টিতব্য নির্বাচনে প্রভাব ফেলার ধারনায় দলের টানে এ মতবিরোধ দেখাদেয়। এসিটি রাখা নিয়ে সভাপতি সম্পাদকেরমধ্যে উচ্চবাচ্য হয়।প্রত্যক্ষদর্শী সূত্র জানায়,১৫ ফেব্রুয়ারি বরিশাল আইনজীবী সমিতির নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।কাগজে কলমে প্যানেল বিহীন নির্বাচনের ঘোষনা হলেও বাস্তবে এর চিত্র ভিন্ন রকমের।

গতবছর আওয়ামীলীগ সমর্থিত প্যানেল থেকে বিজয়ী হওয়া সভাপতি এডভোকেট ওবায়দুল্লাহ সাজুকে পুনরায় একই পদে প্রার্থীকরে আওয়ামীলীগের আইনজীবীরা। গতবছর সম্পাদক পদে নির্বাচিত এডভোকেট মোখলেছুর রহমান বাচ্চু বিএনপির হওয়ায় তিনি নির্বাচন না করলেও দলীয় প্রার্থীদের সমর্থন দিয়ে কাজ করছেন।এদিকে সুপ্রিমকোর্ট বারের সভাপতি এডভোকেট জয়নুল আবেদীন বরিশাল আইনজীবী সমিতিতে একটি এসি (এয়ার কন্ডিশন) উপহার দেন।এসিটি ১৪ ফেব্রুয়ারি কয়েকটি কার্টুনে প্যাকেট অবস্থায় বরিশাল পৌছলে সম্পাদক সেগুলো রিসিভ করে সমিতির সামনে রেখে দেয়।

প্যাকেটের উপরে সৌজন্যে এডভোকেট জয়নুল আবেদীন লেখা রয়েছে। আইনজীবীরা বিষয়টি উতসাহ ভরে দেখতে থাকে।প্যাকেটের উপরে এডভোকেট জয়নুল আবেদীন কোন দলের লেখা না থাকলেও তিনি যে বিএনপির নেতা একথা আইনজীবীদের সকলেই জানে।এতে বিএনপির আইনজীবী নেতার দেয়া এসি নিয়ে সভাপতি সাজু নির্বাচনে প্রভাব পড়ার সম্ভাবনা দেখতে পায়। তিনি সম্পাদককে এসিটি সমিতির সামনে থেকে পিছনে সরিয়ে নিতে বলেন।এতে সম্পাদক বিষয়টি নেতিবাচক বলে মনে করে না সরানোর পক্ষে মত দেয়।এনিয়ে সম্পাদকের কথা এসি থাকলে সমস্যা কি এবং সভাপতির কথা সরালে ক্ষতি কি নিয়ে দুজনের মধ্যে বাকবিতণ্ডা শুরু হয়।একপর্যায়ে সম্পাদক বাচ্চু এসি সরানোর কথা স্বীকার করে নেয়।বিষয়টি সম্পর্কে সম্পাদক সিনিয়র আইনজীবী আওয়ামীলীগ সমর্থিত এমপি তালুকদার মোঃ ইউনুস সহ কয়েকজনকে জানিয়েও কোন ফল পাননি।তারাও সাজুর সুরে তাল মিলিয়ে এসিটি সামনে থেকে সরিয়ে নিতে বলে। সম্পাদক বাচ্চু মামলার কাজে কোর্টে গেলে আআওয়ামীলীগ সমর্থিত আইনজীবীরা এসিটি অন্যত্র সরিয়ে ফেলে।

এ ব্যাপারে আইনজীবী সমিতির সম্পাদক এ্যাড. মোকলেছুর রহমান বাচ্চু বলেন, সিনিয়র আইনজীবী সুপ্রিম কোর্ট বারের সভাপতি এ্যাড. জয়নুল আবেদীন স্যারে একটি এসি উপহার দিয়েছেন। এসিগুলো সামনে রাখা হলে নোংরা রাজনীতির মানসিকতায় এসিটি সরানোর জন্য আওয়ামী সমর্থিত সভাপতি তোরজোড় করছে। বিষয়টি সম্পর্কে সভাপতি এ্যাড. সৈয়দ ওবায়েদুল্লাহ সাজু বলেন, এ রকম কিছু ঘটেনি।

আজকের প্রশ্ন

খুলনা সিটি নির্বাচনের ভোটকে ‘প্রহসন’ বলেছেন বিএনপি ও বামপন্থিরা। আপনি কি একমত?