বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

বুধবার, ১৪ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮, ১১:৫১:১৭

পোড়াদহ মেলায় শত কেজি ওজনের বাঘাআইড়

পোড়াদহ মেলায় শত কেজি ওজনের বাঘাআইড়

বগুড়া: বগুড়ার গাবতলীতে হিন্দু সম্প্রদায়ের সন্যাসী পূজা উপলক্ষে প্রতি বছরের মতো এবারও বুধবার স্বল্প পরিসরে হলেও ঐতিহ্যবাহী পোড়াদহ মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। মেলায় বিভিন্ন বয়সের নারী-পুরুষের উপচেপড়া ভিড় লক্ষ করা গেছে।

এবার মেলার প্রধান আকর্ষণ ছিল ১০০ কেজি ওজনের যমুনা নদীর বাঘাআইড় মাছ। দাম হাঁকা হয়েছিল ১ লাখ ২০ হাজার টাকা। এককভাবে কেউ কিনতে না পারায় প্রতি কেজি এক হাজার ২৫০ টাকা হিসাবে কেটে বিক্রি করা হয়েছে।

গাবতলীর মাছ ব্যবসায়ী ভোলা, কাশেম, লাল মিয়া, নান্নু, জলিল ও মোস্তা বিশাল আকৃতির ১০০ কেজি ওজনের বাঘাআইড় মাছ তোলেন। যমুনা নদীর ৮০ কেজি ওজনের বাঘাআইড় মাছ প্রতি কেজি ১ হাজার ২০০ টাকা দরে বিক্রি হয়েছে।

এছাড়া মেলায় ১৭ কেজি ওজনের বোয়াল মাছ এক হাজার ৬০০ টাকা কেজি, ১৫-১৮ কেজি ওজনের কাতলা দুই হাজার ২০০ টাকা কেজি, ৮-১০ কেজি ওজনের কাতলা এক হাজার ২০০ টাকা, ১০-১২ কেজির আইড় মাছ এক হাজার ২০০ থেকে দেড় হাজার টাকা কেজি বিক্রি হয়। এছাড়া এছাড়া রুই, পাঙাশ, ব্রিগেডসহ বিভিন্ন মাছ মোলায় তোলা হয়েছিল।

এলাকার মুরুব্বি খাজা উদ্দিন, মহররম আলী, আব্বাস খলিফা, সুজা উদ্দিন প্রমুখ জানান, প্রায় ২০০ বছর আগে থেকে হিন্দু সম্প্রদায়ের সন্যাসী পূজা উপলক্ষে গাবতলী উপজেলার গোলাবাড়ি বন্দরের কাছে পোড়াদহ এলাকায় নদীর পাশে একদিনের পোড়াদহ মেলা অনুষ্ঠিত হয়। স্থানীয় মণ্ডল পরিবার বংশানুক্রমে মেলা পরিচালনার দায়িত্বপালন করে থাকে।

এ সময় শত বিঘা জমির ২২ জন মালিক চাষাবাদ বন্ধ রাখেন। গত বছর মহিষাবান ইউনিয়নের চেয়ারম্যান তাদের টোল আদায়ের দায়িত্ব দেননি। ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় এবার তারা ওই জমিতে ধান চাষ করেছেন। ফলে এবার পার্শ্ববর্তী এলাকায় স্বল্প পরিসরে মেলার আয়োজন করা হয়।

তারা জানান, প্রতি বছর মাঘ মাসের শেষ বুধবার আয়োজিত এই মেলা কালের বিবর্তনে হয়ে ওঠে পূর্ব বগুড়াবাসীর মিলনমেলা। পোড়াদহ নামক স্থানে হয় বলে এ মেলার নাম হয়ে যায় পোড়াদহ মেলা। মেলাকে ঘিরে আশপাশে প্রায় ২০ গ্রামের মানুষ মেয়ে ও মেয়ে জামাইকে নিমন্ত্রণ দিয়ে আপ্যায়ন করে থাকে। এ কারণে স্থানীয়রা আবার এ মেলাকে জামাই মেয়ে বলে থাকেন। প্রতিটি বাড়িতে মেলার মাছ, গোশত ও হরেক রকম পিঠা দিয়ে আপ্যায়ন চলছে।

বগুড়া শহরের ফুলবাড়ী এলাকার ব্যবসায়ী ও তরুণ রাজনীতিক রাশেদুল আলম শাওন জানান, তিনি সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ৮ কেজি ওজনের একটি কাতলা মাছ প্রতি কেজি ১২০০ টাকা দরে ক্রয় করেছেন।

স্থানীয় সমাজসেবক লুৎফর রহমান সরকার স্বপন জানান, হাজার হাজার মানুষের পদচারণায় মুখর ছিল মেলা প্রাঙ্গণ। জামাই মেয়েসহ আত্মীয়স্বজনদের পদচারণায় মুখর হয়ে উঠেছে গোটা এলাকা।

এই বিভাগের আরও খবর

আজকের প্রশ্ন

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, ‘সরকার খালেদা জিয়ার রায় নির্ধারণ করে রেখেছে।’ তার এই বক্তব্যের সঙ্গে আপনি কি একমত?