শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

বুধবার, ০১ আগস্ট, ২০১৮, ০৪:৩২:২৩

‘শিক্ষার্থীদের দাবি পূরণে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে’

‘শিক্ষার্থীদের দাবি পূরণে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে’

ঢাকা : আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের দাবি পূরণে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। তিনি বলেন, দোষীদের সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করতে সরকার ব্যবস্থা নেবে। আজ বুধবার (১ আগস্ট) সচিবালয়ে নিজ কার্যালয়ে বাস মালিক ও পরিবহন শ্রমিকদের সঙ্গে বৈঠক শেষে বিফ্রিংয়ে এ কথা বলেন তিনি।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা মনে করি, তাদের দাবিগুলোর সবই যৌক্তিক। তাদের দাবিগুলি আমরা আমলে নিয়েছি এবং সবগুলি দাবি পূরণের জন্য আমরা ব্যবস্থা নিচ্ছি।’

মন্ত্রী বলেন, ‘শিক্ষার্থীদের দাবি ছিল, ফিটনেসবিহীন এবং রুট পারমিট ও লাইসেন্সবিহীন গাড়ি যাতে না চালাতে পারে তার জন্য কঠোর আইন প্রয়োগ করতে হবে।’ এ ব্যাপারে আজকের বৈঠকে আমরা সবাই একমত হয়েছি।

তিনি বলেন, ‘আমরা লাইসেন্সবিহীন বা অবৈধ কোনো গাড়ি রাস্তায় চলতে দেব না।’

এরআগে, দুপুর দুইটার দিকে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের ইস্যুতে বাস মালিক-শ্রমিকদের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামালের সভাপতিত্বে বৈঠকে বসেন নৌ-পরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান, তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু এবং স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী মশিউর রহমান রাঙ্গা।

প্রসঙ্গত, চারদিন ধরে নিরাপদ সড়কের দাবিতে রাজধানীর বিভিন্ন স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীরা সড়কে অবস্থান করছেন। তাদের এখন পুলিশের ভূমিকায়ও দেখা যাচ্ছে। লাইসেন্স না থাকায় কাউকে গাড়ি চালাতে দেয়া হচ্ছে না।

এদিকে, জাবালে নূর পরিবহনের একটি বাসের চাপায় গত রোববার শহীদ রমিজ উদ্দিন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের দুই শিক্ষার্থীর নিহতের পর থেকে শুরু হওয়া শিক্ষার্থীদের এ বিক্ষোভ প্রতিদিনই যেন ফুসে উঠছে।

তাদের বিক্ষোভ, মিছিল আর অবরোধের কারণে বুধবার সকাল থেকে রাজধানী কার্যত অচল হয়ে পড়ে।

ফার্মগেট, শাহবাগ ও সায়েন্স ল্যাবরেটরিসহ বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভরত শিক্ষার্থীরা পুলিশের সামনেই যানবাহন থামিয়ে চালকদের কাছে লাইসেন্স দেখতে চাইছেন। লাইসেন্স দেখাতে না পারলে চালকদের কাছ থেকে চাবি রেখে দেয়া হচ্ছে। ফলে গাড়ি পড়ে থাকছে রাস্তায়। এদিনও রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে বেশ কয়েকটি গাড়ি ভাঙচুর হয়।

আজকের প্রশ্ন

বিএনপি জাতিসংঘে যাওয়ায় সরকার আতঙ্কিত - ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের এ বক্তব্য সমর্থন করেন কি?