বুধবার, ২০ জুন ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

মঙ্গলবার, ০৫ জুন, ২০১৮, ১২:৩৬:১৭

পথভোলা কিশোরীকে আটকে রেখে ধর্ষণ করল বন্ধু!

পথভোলা কিশোরীকে আটকে রেখে ধর্ষণ করল বন্ধু!

ঢাকা: পথ ভুলে যাওযায় এক কিশোরী বাড়ি ফিরতে তার বন্ধুকে ফোন করে ডেকে আনেন স্টেশনে। বিপদে পরে যাকে সে ভরসা করে ডেকে এনেছিলেন, সেই বন্ধুই তাকে এতো বড় সর্বনাশ করবে তা হয়তো ভাবেনি ওই কিশোরী।

কলকাতার হাওড়া স্টেশনে এ ঘটনাটি ঘটেছে।

ওই কিশোরী রিষড়ায় বাড়ি ফিরতে বন্ধুকে ফোন করে হাওড়া স্টেশনে ডাকে। কিন্তু সেই বন্ধু তাকে বাড়িতে নেয়ার বদলে বিহারের হাজিপুরে নিয়ে যায়। তারপর এক আত্মীয়ের বাড়িতে রেখে দিনের পর দিন ধর্ষণ করে। এরপর মাস দু’য়েক বাদে ছেড়ে দেয় বিহারের পথে।

এদিকে, হাজিপুর স্টেশনে পুলিশের সন্দেহ হওয়ায় ওই কিশোরীকে ধরে হোমে পাঠায়। হোম কর্তৃপক্ষ এ সময় বাড়ির লোককে খবর পাঠালে উদ্ধার হয় ওই কিশোরী।

এরপর নির্যাতিতা কিশোরীর অভিযোগের ভিত্তিতে রিষড়া থেকে নবীন সিং নামের এক যুবককে গ্রেফতার করেছে হাওড়া রেল পুলিশ।

জানা গেছে, গত ২১ মার্চ রিষড়া থেকে কলকাতায় আসার পর মায়ের সঙ্গে ওই কিশোরীর ছাড়াছাড়ি হয়ে যায়। এরপর কিশোরী হাওড়া স্টেশন থেকে বন্ধু নবীন সিংকে মোবাইলে ফোন করে বিষয়টি জানায়। বন্ধু নবীন তাকে স্টেশনে অপেক্ষা করতে বলে। তারপর বাড়ি ফিরিয়ে নেয়ার অছিলায় বিহারের হাজিপুরে জামাইবাবুর বাড়িতে নিয়ে যায়। এখানে দিনের পর দিন ওই কিশোরীকে ধর্ষণ করে। এরপর ৩ মে হাজিপুর স্টেশনে ছেড়ে দেয় তাকে।

এরপর ওই কিশোরীর শেষ ঠিকানা হয় হোমে। বাড়ি ফেরার পর বাড়ির লোকজন চন্দনগর কমিশনারেটে অভিযোগ দায়ের করে। হাওড়া রেল পুলিশে কেসটি স্থানান্তরিত করা হয়। এর পরই গ্রেফতার করা হয় নবীন সিংকে।

সোমবার অভিযুক্ত নবীনকে জেল হেফাজতে পাঠায় আদালত। খুব শিগগিরি কিশোরীর মেডিকেল পরীক্ষা করা হবে বলে জানা যায়।

আজকের প্রশ্ন

খুলনা সিটি নির্বাচনের ভোটকে ‘প্রহসন’ বলেছেন বিএনপি ও বামপন্থিরা। আপনি কি একমত?