শনিবার, ২৩ জুন ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

রবিবার, ১১ মার্চ, ২০১৮, ০১:৫৩:৫৯

এলডিসি থেকে উন্নয়নশীল দেশের স্বীকৃতি গর্বের: ড.গওহর রিজভী

এলডিসি থেকে উন্নয়নশীল দেশের স্বীকৃতি গর্বের: ড.গওহর রিজভী

ঢাকা : এলডিসি থেকে উন্নয়নশীল দেশের স্বীকৃতি অর্জন বাংলাদেশের জন্য গর্বের বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রীর পররাষ্ট্রবিষয়ক উপদেষ্টা ড. গওহর রিজভী। তবে সমাজে ক্রমবর্ধমান
বৈষম্য নিয়ে শংকা প্রকাশ করেছেন তিনি।

বেসরকারি গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগ (সিপিডি) আয়োজিত এক সংলাপে তিনি বলেন, আমরা গুরুত্বপূর্ণ অর্জনের সামনে দাঁড়িয়েছি। কিন্তু এটাই শেষ নয়। আমাদের

প্রবৃদ্ধি হচ্ছে ঠিকই, সেই সঙ্গে ভয়ও পাচ্ছি। কেননা, সমাজে ক্রমে বৈষম্য বাড়ছে। দারিদ্র্য বিমোচনে আমরা অনবরত চেষ্টা করে যাচ্ছি, তবু পুরোপুরি বিমোচন করতে পারছি না।

ড. রিজভী সামনের দিনগুলোতে সামাজিক বৈষম্য দূর করার পাশাপাশি স্থিতিশীল রাজনৈতিক পরিবেশ বহাল রাখার ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন। রাজধানীর একটি হোটেলে ‘এলডিসি

থেকে বাংলাদেশের উত্তরণ’ শীর্ষক এই সংলাপ অনুষ্ঠিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন সিপিডি চেয়ারম্যান অধ্যাপক রেহমান সোবহান।

সংলাপে সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অর্থ উপদেষ্টা এবি মির্জ্জা আজিজুল ইসলাম বলেন, মাত্র একটি পণ্য থেকে ৮০ শতাংশ রফতানি আয় হয়। রফতানি পণ্যের বহুমুখীকরণ করতে

হবে। নতুন নতুন বাজারে পণ্য নিয়ে যেতে হবে।

সিপিডির ফেলো দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য বলেন, এলডিসি থেকে বের হলে উচ্চ সুদে ঋণ নিতে হবে। বাংলাদেশ এমন একটি সময়ে এলডিসি থেকে বের হচ্ছে, যখন বৈশ্বিক ও আঞ্চলিক পরিবেশ
অনুকূলে নয়। তাই একটি উত্তরণকালীন কৌশল ঠিক করা উচিত।

সভাপতির বক্তব্যে রেহমান সোবহান বলেন, বিশ্ব অর্থনীতির প্রেক্ষাপট বিবেচনায় উন্নয়নশীল দেশ হওয়ায় পর বেশ কিছু সমস্যা দেখা দেবে। রফতানি ও রেমিন্ট্যান্স কমবে। ইউরোপেও
জিএসপি থাকবে না। তবে এগুলো সমাধানযোগ্য হবে তখনই, যখন দেশের মধ্যে টেকসই গণতন্ত্র বজায় থাকবে।

সংলাপের বিভিন্ন অধিবেশনে আরও বক্তব্য রাখেন- বিশ্বব্যাংকের ঢাকা কার্যালয়ের মুখ্য অর্থনীতিবিদ জাহিদ হোসেন, সিপিডির বিশেষ ফেলো মোস্তাফিজুর রহমান, ইউএনডিপির আবাসিক
সমন্বয়কারী মিয়া সেপ্পো, সুইডেনের রাষ্ট্রদূত চারলোটা স্কালাইটার। বক্তারা উন্নয়নশীল দেশের তালিকায় টিকে থাকতে টেকসই গণতন্ত্র ও সর্বক্ষেত্রে সুশাসন নিশ্চিতের তাগিদ দেন।

এ মাসেই জাতিসংঘের কমিটি ফর ডেভেলপমেন্ট পলিসির (সিডিপি) ত্রি-বার্ষিক পর্যালোচনায় এলডিসি থেকে বের হওয়ার যোগ্যতা অর্জন করতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। তবে বিভিন্ন পর্যায়
পেরিয়ে চূড়ান্তরূপে উন্নয়নশীল দেশের স্বীকৃতি পেতে ২০২৪ সাল পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে।

আজকের প্রশ্ন

খুলনা সিটি নির্বাচনের ভোটকে ‘প্রহসন’ বলেছেন বিএনপি ও বামপন্থিরা। আপনি কি একমত?