সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ,২০১৮

Bangla Version
  
SHARE

মঙ্গলবার, ২৭ মার্চ, ২০১৮, ০৭:৫০:১৬

বর্তমান সরকার স্বৈরাচারী শাসক, আন্তর্জাতিক ভাবে প্রমাণিত

বর্তমান সরকার স্বৈরাচারী শাসক, আন্তর্জাতিক ভাবে প্রমাণিত

শাম্মী আক্তার : বাংলাদেশ স্বৈরশাসনের অধীনে এবং গণতন্ত্রের নূন্যতম মানদন্ড পর্যন্ত মানা হচ্ছে না বলে মনে মন্তব্য করেছেন জার্মান গবেষণা প্রতিষ্ঠান বেরটেলসম্যান স্টিফটুং।

বিশ্বে ১২৯ টি দেশে গণতন্ত্র, বাজার অর্থনীতি এবং সুশাসনের অবস্থা নিয়ে এক সমীক্ষার পর প্রতিষ্ঠানটি তাদের এই রিপোর্টে মন্তব্য করেছেন। এই কথাট বিএনপি কয়েক বছর ধরে বলে আসছে, বর্তমান সরকারে শাসন আমলে গণতন্ত্রের লেশ মাত্রা নেই।

গত ২০০৮ সাল থেকে শুরু করে বর্তমান পর্যন্ত তারা দেশ পরিচালনা করছে। ২০০৮ সালের নির্বাচনের পর থেকে এখন পর্যন্ত।

২০১৪ সালে নির্বাচনে অনির্বাচিত এমপি হচ্ছেন ১৫৪ জন। আওয়ামী লীগ অনির্বাচিত হয়েও তারা দেশ পরিচালনা করে যাচ্ছে। তাদের শাসন এদেশের প্রত্যেক মানুষের নিকট স্বেচ্ছাচারিতার চুড়ান্ত পর্যায়ে উপনীত হয়েছে। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর দিনের পর দিন খুন, গুম, হত্যা, নারী নির্যাতন, ধর্ষণ, হামলা, মামলা বেড়েই চলেছে। তাদের কাছে এগুলো থেকে কেউ রক্ষা পাচ্ছে না।

তাদের নির্যাতনের জন্য কোন মানুষ শান্তিতে থাকতে পারছে না। স্বৈরতান্ত্রিকতা এবং একনায়কতান্ত্রিকতার মাধ্যমে তারা নিজেরা দেশ পরিচালনা করছে। তাদেরকে নিয়ে বেগম খালেদা জিয়া বলেছেন এবং ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান সহ বিএনপির সব নেতাকর্মীরা ও বলেছেন, আওয়ামী লীগ সরকার স্বৈরাচারীভাবে দেশ পরিচালনা করছেন। বর্তমান সরকারের কাছে গণতন্ত্রের লেশ মাত্র নেই। সেটি আজ আন্তর্জাতিক অঙ্গনে দেশ স্বৈরাচারী দেশ হিসাবে হিসাবে বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠিত হল।

সারা বিশ্বের কাছে স্বৈরাচারী দেশ হিসাবে বাংলাদেশের স্থান হয়েছে ৫ নম্বর। এখন বর্তমান সরকারের নিজের মত করে বললেও সেটি আজ এদেশের মানুষেরা বিশ্বাস করবে না। তার স্বৈরাচারি শাসন, গণতন্ত্র হরণ করে দেশ পরিচালনা করা হচ্ছে, আজ সেটি আন্তর্জাতিকভাবে প্রমাণিত হয়ে গেল।

বর্তমান সরকার প্রধান বাংলাদেশের মানুষের ভোটাধিকার হরণ করে প্রধানমন্ত্রী হয়ে আছেন। এদেশে স্বাধীনভাবে বেঁচে থাকার জন্য নূন্যতম অধিকার রাখেনি বর্তমান সরকার ।
পরিচিতি : সাবেক সংসদ সদস্য, বিএনপি

আজকের প্রশ্ন

বিএনপি জাতিসংঘে যাওয়ায় সরকার আতঙ্কিত - ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের এ বক্তব্য সমর্থন করেন কি?