ঢাকা, মঙ্গলবার ২৩শে মে ২০১৭ - 

ধর্ষক নাঈমের সঙ্গে সেলফি নিয়ে যা বললেন মৌসুমী

প্রাইমনিউজবিডি.কম
 বৃহঃস্পতিবার ১৮ই মে ২০১৭

বিনোদন ডেস্ক : বনানীতে দুই তরুণী ধর্ষণের ঘটনা এখন টক অফ দ্য কান্ট্রি। বিষয়টি নিয়ে বেশ সোচ্চার শোবিজ অঙ্গনে তারকারাও। নেক্কার জনক এ ঘটনার সঠিক বিচারের দাবি জানিয়েছেন জনপ্রিয় অভিনেত্রী মৌসুমী হামিদ।  

তিনি বলেন, জোর করে যৌন সম্পর্ক নাকি কোনো ব্যাপার না। এটা নাকি তারা প্রায়ই করে। এটা যে ধর্ষণ তারা জানেই না! এবার জানবে। এবারো যদি ওরা টাকার জোরে দু'দিন পর ছাড়া পায় আমার মনে হয় আমাদের দেশের সাধারণ জনগণ সবাইকে চিনে ফেলেছে। সবার ছবি লক্ষবার দেখেছে সবাই। সারা জীবন তো ঘরের মধ্যে থাকবে না। বের তো হতেই হবে। বাকিটা বুঝে নেন। তারা মিডিয়ার শক্তি সম্পর্কে জানে না। স্টপ রেপ।

মৌসুমী আরো বলেন, একটা খুনের শাস্তি মৃত্যদণ্ড না হলেও একটা ধর্ষণের শাস্তি অবশ্যই মৃত্যদণ্ড হওয়া উচিত। প্রত্যেকটা ধর্ষণ মামলার বিচার যেন অবশ্যই এবং দ্রুত কার্যকর করা হয়। এইটা পৃথিবীর জঘন্যতম অপরাধ তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

এদিকে ২৮ মার্চ বনানীর রেইনট্রি হোটেলে ধর্ষণের ঘটনার অন্যতম আসামি নাঈম আশরাফের সঙ্গে মৌসুমীর একটি সেলফি অনলাইন দুনিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। নাঈমের সঙ্গে সম্পর্কের ব্যাপারে জানতে চাইলে মৌসুমী আরটিভি অনলাইনকে বললেন, ধর্ষক নাঈমের সঙ্গে ওই একবারই আমার দেখা হয়েছে। এর আগে অরিজিত সং ও নেহা কাক্করের কনসার্টে পারফরম করার জন্য আমাকে সে বলেছিল। তবে যে কোনো কারণ বসত আমি কাজটি করিনি। সেসব নিয়ে আপাতত কিছু বলতে চাই না।

সেলফির ব্যাপারে আরটিভি অনলাইনকে তিনি বলেন, ২০১৫ সালে ভূমিকম্পে বিধ্বস্ত নেপালের সহযোগিতায় ‘কনসার্ট ফর নেপাল’ এ আমাদের এক সহকর্মীর আমন্ত্রণে রাজধানীর কলাবাগান মাঠে যাই। সেখানে কনসার্টে পার্থ বড়ুয়াসহ মিডিয়ার অনেক সেলিব্রেটি অংশ নেন। আমি জানতাম না আয়োজনটির সঙ্গে ধর্ষক নাঈম জড়িত। ছবিটি সে সময়ের। কারো চেহারা দেখে তো ভালো মন্দ বোঝার কোনো উপায় নেই। তবে সম্প্রতি ধর্ষকে সঙ্গে ওই ছবি নিয়ে অপপ্রচার করা নিয়ে আমি খুব বিব্রত।

বৃহস্পতিবার মুঠোফোনে কথা চলাকালীন সময়ে মৌসুমী জানালেন, তিনি রাজধানীর একটি হাসপাতালে রয়েছেন। সেখানে কয়েকদিন যাবত তার এক ঘনিষ্ঠ আত্মীয় চিকিৎসাধীন রয়েছেন। আজ দুপুর তিনটায় তার অপারেশন। এ নিয়ে খুব দুশ্চিন্তায় আছেন মৌসুমী। ফোন রাখার আগে বললেন, আমার ভাইয়ের জন্য দোয়া করবেন সবাই।  


খালেদা জিয়ার কার্যালয়ে প্রশ্নবিদ্ধ তল্লাশি বিচারহীনতার কারণে ধর্ষণ এখন জাতীয় ক্রীড়া: এরশাদ ইএফটি ও আরটিজিএস সেবা প্রদানে ব্যাংকগুলোকে নির্দেশ দশম আইপিএলে কারা পেলেন ১১ পুরস্কার রাবির হল থেকে এইচএসসি’র খাতা উদ্ধার, ২ শিক্ষক আটক বান্দরবানে সন্ত্রাসীদের সঙ্গে সেনাবাহিনীর গোলাগুলি, আটক ৩ প্রাণঘাতি রোগ লিভার সিরোসিস মঙ্গলবার দিনটি আপনার কেমন যাবে? ‘নাজমুল হুদা কোন রাজনীতিবিদ নন’ শ্রীলংকা-বাংলাদেশ সম্পর্ক আরও সুদৃঢ় হবে : স্পিকার জনতা ব্যাংকের নিয়োগ কার্যক্রমে নিষেধাজ্ঞা 'খালেদা জিয়ার কণ্ঠে অপরাজনীতির বিরুদ্ধে সুন্দর কথা মানায় না' হঠাৎ তৎপর রাশিয়ার ‘ঘাতক উপগ্রহ! ঠাকুরগাঁওয়ে ঢোলারহাট ইউনিয়ন পরিষদের বাজেট ঘোষনা ফুলবাড়ীতে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্ট ছেলের দায়ের কোপে বাবা আহত ভোলায় ২১৭৫ পিস ইয়াবাসহ দুই যুবক আটক বাহুবলিকে টেক্কা দেবে শ্রুতির 'সংঘমিত্র'! ইন্দোনেশিয়ায় ১৪১ জন সমকামী আটক বুধবার সোহরাওয়ার্দীতে বিএনপির সমাবেশ দরপতনের শীর্ষে রুপালী ব্যাংক গেইনারের শীর্ষে অগ্নি সিস্টেমস প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যানে তরুণীকে ধর্ষণ, ৯ মাস পর মামলা মেক্সিকোয় বাস খাদে, চার্চের ১৭ সদস্য নিহত ’অযোগ্য বলে আমাকে খোঁটা দিত’ রেইনট্রিতে উদ্ধারকৃত ১০ বোতল মদ বলে প্রমাণ ‘৮ বছরে সব গাড়ি ইলেকট্রিক হবে, ব্যবসা হারাবে তেল’ আলু, শশা, টমেটো বেশি খেলে, বিপদ আপনার সামনে! পাঠ্যপুস্তকে ফের নতুন ভুল যাতে না হয়, শিক্ষামন্ত্রীর সতর্কবার্তা ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় লেনদেন শেষ দুই ছাত্রী ধর্ষণ মামলা নিতে গাফিলতি ছিল না ফিল্মি স্টাইলে শোরুম ম্যানেজারকে গুলি করে পৌনে ২ লাখ টাকা ছিনতাই উত্তরাঞ্চলে পণ্য পরিবহন ধর্মঘট আরো ২৪ ঘণ্টা বাড়লো বাংলাদেশকে ল্যাথামের হুমকি প্রেম করে বিয়ে, অতঃপর লাশ রমজানে ভেজাল ইফতারি বিক্রি করলে কঠোর ব্যবস্থা: সাঈদ খোকন পার্বত্যাঞ্চলের স্থাপনা থেকে ত্রিদিবের নাম মুছে ফেলার নির্দেশ মোটর সাইকেলের ধা্ক্কায় বৃদ্ধ নিহত জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধ নিয়ে সংঘর্ষে মহিলাসহ আহত-২০ `বিএনপির আন্দোলন দমন যুবলীগই যথেষ্ট' সঙ্গীর চাকরি চলে গেলে আপনার করণীয় সোমবার আওয়ামী লীগ সম্পাদকমণ্ডলীর জরুরি সভা বিয়ে করতে যাচ্ছেন শুভশ্রী-রাজ! নাটকীয়তাপূর্ণ ম্যাচে পুনেকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই চ্যাম্পিয়ন রিয়াল, জিতেও শিরোপা হারালো বার্সা নাটোরে ২য় দিনে চলছে পণ্যপরিবহন মালিকদের ধর্মঘট মাহে রমজানের পূর্ব প্রস্তুতি চোখের মেকআপ ওঠানোর কৌশল আহসানউল্লাহ বিশ্ববিদ্যালয়ের সেই শিক্ষককে আত্মসমর্পণের নির্দেশ ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় লেনদেন চলছে