ঢাকা, শনিবার ২১শে অক্টোবর ২০১৭ - 

গ্রিক মূর্তি না সরালে আমরা আবার রাস্তায় নামবো : হেফাজত

প্রাইমনিউজবিডি.কম
 বৃহঃস্পতিবার ১৮ই মে ২০১৭

ঢাকা : আসন্ন পবিত্র মাহে রমজানের আগেই গ্রিক দেবী থেমিসের মূর্তি অপসারণের আহ্বান জানিয়ে হেফাজতের মহাসচিব আল্লামা জুনাইদ বাবুনগরী ও কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা আজিজুল হক ইসলামাবাদী আজ বৃহস্পতিবার এক যুক্তবিবৃতি দিয়েছেন।

বিবৃতিতে তারা বলেন, দেশের ওলামায়ে কেরামের কাছে হাইকোর্টের প্রাঙ্গণ থেকে গ্রিক দেবী থেমিসের মূর্তি সরানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তাই আমরা আসন্ন পবিত্র মাহে রমজানের আগেই সেটি অপসারণের জোর দাবি জানাই। প্রধান বিচারপতির কাছেও আমাদের দাবিÑ বৃহত্তর তৌহিদি জনতার চাওয়াকে গুরুত্ব দিন এবং দেশে এই ইস্যুতে যেন বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি না হয়, সেজন্য মূর্তি অপসারণে দ্রুত পদক্ষেপ নিন। অন্যথায় যথাসময়ে মূর্তি না সরালে আমরা আবারও রাস্তায় নামতে বাধ্য হবো।  

বিবৃতিতে তারা আরো বলেন, গোঁড়া সেকুলার মৌলবাদী প্রগতিশীলরা অজ্ঞতাপ্রসূত বলছেন যে, মূর্তি আর ভাস্কর্য নাকি এক নয়! অথচ বাংলা একাডেমীর ব্যবহারিক বাংলা অভিধানের ৯২৯ নং পৃষ্ঠায় ‘প্রস্তরাদি খোদাই করে বা তা দিয়ে মূর্তি বানানোর কাজ’কে ভাস্কর্য বলে ব্যাখ্যা দেওয়া হয়েছে। এছাড়া ‘ভাস্কর’ থেকে ‘ভাস্কর্য’ শব্দটি এসেছে। ভাস্কর-এর অর্থ: সূর্য বা অগ্নি। 

অন্যদিকে, ‘প্রস্তরাদি থেকে যিনি মূর্তি নির্মাণ করেন’ তাকেও ভাস্কর বলা হয়েছে উক্ত অভিধানে। এছাড়া বাংলা একাডেমীর ইংরেজি-টু-বাংলা অভিধানে ভাস্কর্যের ইংরেজি শব্দ ‘স্কাপচার’-এর বাংলা অর্থ করা হয়েছে এভাবে: ‘মূর্তি/প্রতিমা গড়া বা খোদাই করা’। সুতরাং যারা এতদিন ধরে বলছেন যে, মূর্তি আর ভাস্কর্য এক জিনিস নয়, তারা প্রকৃতপক্ষে স্যুডো-ইন্টেলেক্ট তথা মিথ্যা বুদ্ধিবৃত্তির বেসাতি করেছেন মাত্র!        

তারা বলেন, আমরা আগেও বলেছি, শিল্পকর্ম ও স্থাপত্যকলার বিরুদ্ধে আমরা নই; বরং মানুষের শিল্পবোধ ও মননশীলতার উন্নয়নে এগুলোর গুরুত্ব রয়েছে বলে আমরা মনে করি। আপনারা ইসলামী শিল্পকর্মের ইতিহাসের দিকে তাকান: আগ্রার তাজমহল, জেরুজালেমের ডোম অফ দ্য রক, স্পেনের কর্ডোভায় খোদাইকৃত মুঘীরা কৌটা, কায়রোতে সেন্ট লুইয়ের ব্যাপ্টিস্টেয়ার ইত্যাদি এগুলো মুসলমানদের কর্তৃক বিশ্বনন্দিত ইসলামী শিল্পকর্মের শ্রেষ্ঠ নিদর্শন। এছাড়া বিগত ২০১৫ সালে ব্রিটিশ মিউজিয়ামে মুসলিমদের শিল্পকর্ম ও ঐতিহ্যকে তুলে ধরতে উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে, সেজন্য দুটো গ্যালারির ব্যবস্থাও করা হয়েছে সেখানে।

তারা আরো বলেন, তবে মূর্তি বা প্রতিমা নির্মাণ ব্যতীত এবং ইসলামের বিশ্বাসব্যবস্থা তথা তাওহিদ ও ঈমানের সাথে সাংঘর্ষিক না হওয়া পর্যন্ত যেকোনো শিল্পকর্ম ও স্থাপত্যকলায় ইসলামের আপত্তি নেই; কাজেই, আমাদেরও কোনো আপত্তি থাকতে পারেনা। কিন্তু পাশ্চাত্যের মডার্নিজম তথা আধুনিকতাবাদ এবং ইউরোপীয় খ্রিস্টীয় সভ্যতার আলোকে ইসলাম তার শিল্পবোধ, নান্দনিকতাবোধ ও কলাজ্ঞান পরিমাপ করেনা। 

সুতরাং ইসলাম প্রাচীন মূর্তিকেন্দ্রিক পৌত্তলিক জাহেলিয়াতকে শিল্পের নামে উপস্থাপন করারও বিরোধী, যেমন: আমাদের হাইকোর্টের সামনে রোমানদের প্রাচীন বিশ্বাসের অংশ ন্যায়ের দেবী থেমিসের মূর্তি বা ভাস্কর্য স্থাপন। এছাড়া বিগত শতকের প্রারম্ভে উদ্ভাসিত আধুনিকতাবাদপ্রসূত কলাকৈবল্যবাদÑঅর্থাৎ ‘শিল্পের জন্য শিল্প’ স্লোগান তুলে মানব সভ্যতায় এক ধরনের বিপর্যয়কর পরিস্থিতি তৈরি করা হয়েছিল। 

জন্ম থেকেই আধুনিকতাবাদ মানুষের সহজাত ঈমান, সমাজব্যবস্থা ও ধর্মসহ মানব সভ্যতার সমস্ত প্রতিষ্ঠানকে অস্বীকার করে এসেছে এবং অবাধ ভোগবাদ ও পুঁজিবাদের সহায়কে পরিণত হয়েছে। আমরা এই আধুনিকতাবাদকে মানব সভ্যতার সমকালীন বিপর্যয়ের মূল কারণ বলে মনে করি। 

আমাদের নিজস্ব ইতিহাস, ঐহিত্য ও ইসলামী ভাবসম্পদ রক্ষার্থে এই মহামারী আধুনিকতাবাদ এবং এর বঙ্গীয় সেকুলার ধ্বজাধারীদের বিরুদ্ধে গণলড়াইয়ে অংশ নিতে দেশের সকল স্তরের ঈমানদার নাগরিকদের আমরা আহ্বান জানাই।

তারা আরো বলেন, গ্রিক দেবীমূর্তির পক্ষে যারা আজ ওকালতি করছেন, হাদিস অনুযায়ী পরকালে তাদের হাশর হবে মূর্তি প্রস্তুতকারীগণের সাথে। তাছাড়া এই মূর্তির সাথে বাংলাদেশের ইতিহাস-ঐতিহ্য ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনার ন্যূনতম সম্পর্কও নেই। তাই এটির অপসারণ শতভাগ যৌক্তিক এবং এটি ধর্মপ্রাণ গণমানুষের ঈমানের দাবিও বটে।      



Advertisement
আফগানিস্তানে মিলিটারি বাসে হামলা: নিহত ১৫ ১০ ঘন্টা পর পাটুরিয়া -দৌলতদিয়া রুটে ফেরি চলাচল শুরু রবিবার ৩৩ পর্যবেক্ষকের সঙ্গে সংলাপে বসছে ইসি সম্পত্তি নিয়ে পাকিস্তানি ‘আত্মীয়’র সঙ্গে বিবাদে জড়ালেন সাইফ সাভারে সাংবাদিকদের সাথে ইউপি চেয়ারম্যানের মত বিনিময় 'ভাই' সেজে প্রেমিকার শ্বশুরবাড়িতে হাজির প্রেমিক, অতঃপর...! সোমবার দুপুরে সুষমা-খালেদা একান্ত বৈঠক দেশে দুর্যোগ চলছে আর গণতন্ত্রে মহাদুর্যোগ চলছে: মওদুদ ‘রোহিঙ্গা সংকট নিরসনে ক্ষমতাসীনদের নৈতিক অবস্থান নেই’ রোহিঙ্গাদের সাহায্যে কারও কাছে হাত পাতিনি: জয় টপলেস হতে আপত্তি নেই কারিশমার তালতলীতে বেরীবাঁধ ভেঙ্গে ৮গ্রাম প্লাবিত : ২০ হাজার মানুষ পানি বন্দি মধ্যরাতে পরকীয়া প্রেমিকাসঙ্গ, কলেজ অধ্যক্ষকে গণধোলাই ভোলায় নিজের বাল্য বিয়ে ঠেকিয়ে দিলো রেশমা ভোটাধিকার পুনঃপ্রতিষ্ঠার স্বার্থে আমরা নির্বাচনে যাবো: দুদু গোপনে ইসরাইল সফর করলেন সৌদি যুবরাজ সালমান! যারা অতিরিক্ত কাঁদেন তারা কেমন মানুষ? ভারতে ট্রাক উল্টে নিহত ১০ বন্ধ হচ্ছে টিএসসি’র কার্যক্রম নভেম্বরে চলবে দেশব্যাপী সাঁড়াশি অভিযান পশ্চিমবঙ্গে ইলিশের বন্যা, বাংলাদেশে নিষিদ্ধ মালয়েশিয়ায় ভূমিধসে নিহত ৩, বাংলাদেশিসহ নিখোঁজ ১১ কিরকুকের সম্পূর্ণ দখল নিয়েছে ইরাকি বাহিনী বৃষ্টির দিনে বাসায় যেভাবে সময় কাটাবেন খালেদা জিয়া ষড়যন্ত্র করে দেশে ফিরেছেন: সেতুমন্ত্রী ‘স্টুডেন্ট অব দি ইয়ার’ সম্পর্কে অজানা কিছু তথ্য অক্ষয় নয়, রণবীর সিং সুষমার ঢাকা সফরে বিএনপির সঙ্গে বৈঠকে এজেন্ডার বাইরেও আলোচনা! সিনহার বদলে মিঞা: সঙ্কটের সুরাহা হবে কি? জঙ্গিদের সঙ্গে সংঘর্ষে মিশলের ৩৫ পুলিশ নিহত জাতীয়তাবাদী স্বেচ্ছাসেবক দলের নিন্দা ও প্রতিবাদ কুষ্টিয়ায় বৃষ্টিতে দেয়াল ধসে বৃদ্ধার মৃত্যু রিয়াল মাদ্রিদে ব্রাজিলিয়ান বিস্ময় তরুণ যৌন হেনস্তার জন্য নারীরাও দায়ী, অভিনেত্রীর মন্তব্যে তোলপাড় ‘হার্ভের মতো যৌনলিপ্সু বলিউডেও আছে’ রবিবার জাপানে আছড়ে পড়বে টাইফুন ‘লান’ ইভিএমে বিশেষজ্ঞদের ‘না’ শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ি নৌরুটে ফেরি ও লঞ্চ চলাচল বন্ধ মৃত্যু ঝুকির পরেও ডাক্তারদের বিজনেস বাড়াতে করা হয় সিজার নদী থেকে অবৈধভাবে বালু তুলছেন আ.লীগ নেত্রী পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত পরমাণু অস্ত্র পরীক্ষা বন্ধ করবে না উ.কোরিয়া দাম্পত্য জীবনে একঘেয়েমি? জেনে নিন উষ্ণতা ফেরানোর সহজ উপায় প্রেম নিবেদন করবেন? জেনে নিন ভালবাসার ১০টি পৃথিবীবিখ্যাত পংক্তি ধর্ষিতার পরিবারের কাছে 'ভোজ' খাওয়ানোর দাবি গ্রামবাসীর সমুদ্রবন্দরে ৩ নম্বর সতর্কসংকেত, আজও সারাদেশে ভারি বৃষ্টি প্রেম করে বিয়ে করতে গেলে যে ৭টি ঝামেলায় আপনাকে পড়তে হবে চীনে প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে অভ্যুত্থানচেষ্টা! রোহিঙ্গাদের দেখতে আসছেন জর্ডানের রানী কাবুলে মসজিদে আত্মঘাতী হামলায় নিহত ৩০